নিজ দলের নেতাকর্মীদের কাছে বেধড়ক মারধরের শিকার হয়ে যা বললেন সেই ছাত্রলীগ নেত্রী

ক্ষমতাসীন আওয়ামী লীগের ভাতৃপ্রতীম সংগঠন ছাত্রলীগের পূর্ণাঙ্গ কেন্দ্রীয় কমিটি ঘোষণা করা হয়েছে। ছাত্রলীগ সভাপতি রেজওয়ানুল হক চৌধুরী শোভন ও সাধারণ সম্পাদক গোলাম রাব্বানি গত শনিবার এই কমিটি স্বাক্ষর করেন। আর সোমবার তা প্রকাশ করা হয়।

আর কমিটি প্রকাশিত হওয়ার পরেই ছাত্রলীগের পূর্ণাঙ্গ কমিটিতে স্থান না পেয়ে অনেক নেতানেত্রীরাই ক্ষোভে ফুঁসছেন।

অভিযোগ উঠেছে, অছাত্র ও বিবাহিতদের পদ-পদবি দেয়া হয়েছে। কিন্তু বিগত সময়ে যারা সংগঠনের জন্য চ্যালেঞ্জ নিয়ে কাজ করেছেন তাদেরকে বঞ্চিত করা হয়েছে।

পদ বঞ্চিত নেতারা বলছেন, ছাত্রলীগের কমিটি গঠনে প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশ উপেক্ষিত হয়েছে। গঠনতন্ত্রে বিবাহিতদের ছাত্রলীগে পদপদবী না পাওয়ার বিধান থাকলেও এবার রেকর্ড পরিমাণ বিবাহিতদের স্থান দেওয়া হয়েছে।

পরে পদবঞ্চিতরা ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের মধুর ক্যান্টিনে সংবাদ সম্মেলন করে এই কমিটির প্রতিবাদ জানায়। আর সেখানেই ছাত্রলীগ নেতাকর্মীদের হাতে ব্যাপক মারধরের শিকার হন পদবঞ্চিতরা। যাদের মধ্যে অন্যতম হলেন শ্রাবণী দিশা।

তিনি নিজের ফেসবুক টাইমলাইনে একটি পোস্ট দিয়েছেন। নিচে সেটি তোলে ধরা হলো:
বঙ্গবন্ধুর আদর্শকে ধারণ করে, আপার প্রশ্নে আপোষহীনভাবে রাজনীতি করে আজ ছাত্রলীগ থেকে আমার অর্জন চোখের উপরে ১৮ টা সেলাই ও সহযোদ্ধাদের উপর ন্যাক্কারজনক হামলা। বিতর্কিতদের প্রতিষ্ঠিত করার জন্যই কি তাদের দ্বারা আমাদের উপর এই নির্যাতন? আর কিছু বলবো না, যা বলার আমার আস্থার ঠিকানা, আমার নেত্রী মাননীয় প্রধানমন্ত্রী আপাকেই বলবো।

এর আগে ২০১৮ সালের ১১ ও ১২ মে ছাত্রলীগের ২৯ তম জাতীয় সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়। এতে নিজেরা কমিটি করতে ব্যর্থ হলে ৩১ জুলাই প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা সাংগঠনিক অর্পিত ক্ষমতাবলে রেজওয়ানুল হক চৌধুরী শোভনকে সভাপতি এবং গোলাম রাব্বানীকে সাধারণ সম্পাদক করে কেন্দ্রীয় কমিটি ঘোষণা করেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*