জুতা পায়ে শহীদ বেদীতে রাজশাহীর বিএনপি নেতারা!

বিএনপি’র ৪১তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উপলক্ষে রাজশাহী মহানগর ও জেলা বিএনপি রোববার (১ সেপ্টেম্বর) দিনব্যাপী বিভিন্ন কর্মসূচি পালন করে। বিকেলের কর্মসূচি পালিত হয় মহানগরীর ভুবন মোহন শহীদ মিনারে। শহীদে বেদীতে সাদা কাপড় বিছিয়ে তার ওপর মঞ্চ তৈরি করা হয়। কিন্তু বেদীর সিঁড়িতে জুতা পায়ে দিয়ে উঠে সেখানে বসে থাকতে দেখা যায় মহানগর বিএনপির শীর্ষ নেতাদের!

যেখানে শহীদ বেদীর সিঁড়িতে ওঠার আগেই সবাই জুতা খুলে ওঠেন। সেখানে বিএনপি নেতাদের এমন কাণ্ডে উপস্থিত সবাই হতবাক হয়েছেন।

প্রতিষ্ঠাবার্ষিকীর ওই অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন বিএনপি চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা রাজশাহীর সাবেক মেয়র ও সংসদ সদস্য মিজানুর রহমান মিনু। তবে ভুবন মোহন পার্কের শহীদ মিনার বেদির সিঁড়িতে জুতা নিয়ে ওঠার ব্যাপারে তার বা মহানগর বিএনপির কোনো নেতার বক্তব্য পাওয়া যায়নি।

এর আগে সকাল সাড়ে ৭টায় ভুবন মোহন পার্কে দলীয় ও জাতীয় পতাকা উত্তোলন, পায়রা অবমুক্তকরণ ও ফেস্টুন উড়িয়ে দিনের কর্মসূচির উদ্বোধন করেন তিনি। বিকেলে একই স্থানে পথযাত্রা ও সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়।

বিকেলের অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে মিনু বলেন, এই সরকার দেশ পরিচালনায় সম্পূর্ণ ব্যর্থ। তারা দেশকে ভারতের তাবেদার রাষ্ট্রে পরিণত করেছে। বর্তমানে ভারত আসামের বাসিন্দাদের বাংলাদেশে পুশ-ইন করার জন্য গভীর ষড়যন্ত্রে লিপ্ত হলেও বর্তমান তাবেদার সরকার নীরব দর্শকের ভূমিকা পালন করছে।

তিনি আরও বলেন, সরকার সবক্ষেত্রে দুর্নীতি করছে। মাশা মারা বিষ ক্রয়ের অর্থসহ দেশের সব মেগাপ্রকল্পের টাকা সরকার আত্মসাত করেছে। এই টাকা নিয়ে সরকারের অবৈধ এমপি, মন্ত্রী ও তাদের দলের নেতাকর্মীরা টাকার পাহাড় গড়ে তুলেছে। বিদেশে বাড়ি-গাড়ি করেছে। নিজেদের আরাম আয়েশের জন্য ব্যাংক থেকে হাজার কোটি টাকা লুট করে ব্যাংকগুলো দেউলিয়া করেছে।

মিনু বলেন, এই সরকার বিনা কারণে শুধুমাত্র রাজনৈতিক প্রতিহিংসা পরায়ন হয়ে খালেদা জিয়াকে কারাগারে বন্দি করে রেখেছে। ওনার শারীরিক অবস্থা খারাপ হওয়া সত্বেও জামিন দেওয়া হচ্ছে না। তবে রাজশাহী বিভাগীয় মহাসম্মেলন থেকে সরকার পতন, বেগম জিয়ার মুক্তি এবং গণতন্ত্র পূণরুদ্ধারে কঠোর আন্দোলন গড়ে তোলা হবে বলেও জানান বিএনপি নেতা মিনু।

সমাবেশে সভাপতিত্ব করেন মহানগর বিএনপি’র সভাপতি মোহাম্মদ মোসাদ্দেক হোসেন বুলবুল।

বিশেষ অতিথি ছিলেন রাজশাহী মহানগর বিএনপি’র সাধারণ সম্পাদক এড. শফিকুল হক মিলন, বিএনপি কেন্দ্রীয় কমিটির সদস্য সহিদুন্নাহার কাজি হেনা, জাতীয়তাবাদী আইনজীবী ফোরামের সভাপতি এড. এরশাদ আলী ঈশা, মহানগর বিএনপি’র সাংগঠনিক সম্পাদক আসলাম সরকার প্রমুখ।

পূর্বপশ্চিমবিডি

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*